কুয়েতে বাংলাদেশ ফ্যামিলি ফোরাম ও বঙ্গরুপা শিশু মেলার যৌথ উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস উদযাপন


শেখ এহছানুল হক খোকন, বর্তমানকন্ঠ ডটকম, কুয়েত : ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ ফ্যামিলি ফোরাম ও বঙ্গরুপা চারুকারু সঙ্গীত শিশু মেলার যৌথ উদ্যোগে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানটি সাজানো হয়েছিল বিভিন্ন পর্ব দিয়ে। তার মধ্যে প্রথমেই পবিত্র কোরআন পাক থেকে তেলোয়াত, দুদেশের জাতীয় সংগীত, কেক কেটে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন, দ্বিতীয় পর্বে মেধাবী ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে সম্মননা প্রদান, তৃতীয় পর্বে আলোচনা ও ২২ জন মেধাবী ছাত্র ছাত্রীদের পরিচয় পর্ব ইত্যাদি নিয়ে সাজানো । পুরো হল রুম জুড়ে ছিল আনন্দ মুখর পরিবেশ।

কুয়েতের খাইতান প্যালেসে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন ফ্যামিলি ফোরামের সভাপতি মোহাম্মদ আব্দুল হাই ভূঁইয়া, বিভিন্ন পর্বের অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন যথাক্রমে ফাতেমা ভূঁইয়া, নওরিন নওয়াজ, রুবিয়া, আয়েশা ও তাহানী। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথী হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কুয়েতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এস এম আবুল কালাম, বিশেষ অতিথীদের মধ্যে ছিলেন দূতাবাসের কাউন্সিলর শ্রম আব্দুল লতিফ খাঁন, দূতাবাসের কার্য্যলয় প্রধান মোঃআনিছুজ্জামান, বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী ও বাংলাদেশ মনিং গ্লোরী স্কুলের চেয়ারম্যান শহিদ ইসলাম পাপুল, ডঃ সান্তা মারিয়া প্রিন্সিপাল ইন্ডিয়ান সেন্ট্রাল স্কুল, ডঃ অপ্রিতা সেন্টারজি কুয়েত মেডিকেল ইউনির্ভারসিটি, বিজনেস কাউন্সিলের সভাপতি মোকাই আলী লুৎফর রহমান, বঙ্গরুপা চারুকারু সঙ্গীত শিশু মেলা কুয়েতের পরিচালক জহিরুল কাইয়ুম বাহার। ফ্যামিলি ফোরাম এর উপদেষ্ঠা আব্দুল আউয়াল, উপদেষ্টা জাহাঙ্গীর হোসেন, মাহবুর আলম, মোঃ আলমগীর হোসেন, মনির হোসেন বাবু, মোঃ লিটন, আক্তারুজ্জামান, মাঈনউদ্দীন, সিদ্দিকুর রহমান, হাফিজুর রহমানসহ আরো অনেকে। সংগঠনের নেতৃবৃন্দের সহযোগীদের মধ্যে ছিলেন বাবুল দাশ সাংগঠনিক সম্পাদক, আবুর হোসেন আপ্যায়ন সম্পাদক, মামুন আল হক, শামীম আহমেদ, কার্তিক বাবু, আলাউদ্দিন আলা, সঞ্জিত বাবু, শরীফ উদ্দীন, মোঃ হেলালসহ অনেকে।

প্রধান অতিথি তার বক্তাব্যে বলেন, কুয়েতে বা প্রবাসে মেধা তালিকায় ছাত্র/ছাত্রী ও পরিবার গুলোর অগ্রযাত্রা সত্যিই প্রশংসার, পাশাপাশি প্রবাসে বাচ্চাদের মায়েদের ভূমিকাও প্রশংসার দাবীদার। আরো বক্তব্য রাখেন, ইন্ডিয়ান স্কুলের অধ্যাপক ।

বক্তারা এই আয়োজন প্রবাসের মাটিতে বিশেষ অবদান রাখবে বলে প্রত্যাশা করেন। সভাপতি তার বক্তব্যে কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক কুয়েত প্রবাসী যে সমস্ত মায়ের সকল প্রতিকুলতা কাটিয়ে তাদের সন্তানদের দেশ ও মানুষের কল্যানে কাজ করার জন্য তৈরী করছেন, সে সকল মায়েদের রত্ম গর্ভা হিসাবে পরবর্তিতে বিশেষ সম্মাননা প্রদান করবে বলে ঘোষনা দেন সংগঠনটি। সংগঠনের শিল্পীদের গানের মধ্যে দিয়ে আনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *