রাজধানীর তুরাগে ভিক্ষারীর রহস্য জনক মৃত্যু

রাসেল খান,বর্তমানকণ্ঠ ডটকম: রাজধানীর তুরাগে উলুদাহা এলাকা থেকে শারীরিক প্রতিবন্ধী এক ভিক্ষারির লাশ উদ্ধার করেছে তুরাগ থানা পুলিশ।
আজ রবিবার দুপুর ২ টার দিকে তুরাগের উলুদাহা এবং পাকরিয়ার মাঝামাঝি এলাকা থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করা হয়।
নিহতের নাম আকবর হোসেন (৩৮) তিনি তুরাগের উলুদাহা এলাকার আহাম্মদ আলির ছেলে।
স্থানীয় সূত্রে জানাযায়, নিহত আকবর আলির স্ত্রী এবং ৩ বছরের একটি শিশু কন্যা রয়েছে। নিহত আকবর তুরাগের ভিবিন্ন এলাকায় ভিক্ষা করতো এবং প্রতিদিন এই রাস্তা দিয়ে আসতো। গতকাল  শনিবার ভিক্ষা জন্য পাকুরিয়া এলাকা দিয়ে ইজতেমা মাঠে যায়। রাতে সে আর বাড়ি ফিরে আসেনি। তার স্ত্রী রাবেয়ো  ভিবিন্ন জায়গায় খোজাখুজি করে কোন খুজ পায়নি স্বামীর। রবিবার দুপুর দেড়টার দিকে ইজতেমায় আসা লোকজন বাড়ি ফিরার সময় উলুদাহা এবং পাকুরিয়া এলাকার মাঝামাঝি জায়গার কালবাটের ভিতরে লাশ দেখতে পেয়ে এলাকার লোকজনদের এবং থানায় জানায়, খবর পেয়ে উলুদাহা এলাকার লোকজন এবং তুরাগ থানার পুলিশের এসআই সুমন লাশটিকে উদ্ধার করে।
তুরাগ থানার (এএসআই) সুমন চন্দ্র জানান, আমরা ইজতেমায় আসা পথচারীরা কালার্ভাটের ভিতরে একটি লাশ পরে থাকতে দেখে থানায় খবর দেয়। খবর পেয়ে আমরা সেখানে যাই এবং সেখান থেকে নিহতের লাশটি উদ্ধার করি এবং সুরাতহাল করি।
তিনি আরো জানান নিহত আকবরের গলায় এবং গালে নোখ এবং আঙ্গুলের চিনহ রয়েছে। আমাদের ধারোনা আকবরকে গলা চাপদিয়ে শ্বাসরোধ্য করে হত্যা করা হয়েছে।
এসআই সুমন আরো জানান, লাশটি ময়রাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

bangla

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *