সড়ক দুর্ঘটনার শিকার প্রবাসী কামরুল ইসলাম নিলয় পাড়ি দিয়েছেন স্ত্রী ও দুই সন্তানের কাছে

নিজস্ব প্রতিনিধি, বর্তমানকন্ঠ ডটকম, সৌদি আরব : সৌদি আরবে ওমরা করতে এসে মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়ে মারাত্মক আহত অবস্থায় দুইদিন মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে সৌদি আরব সময় শনিবার সন্ধ্যায় ইতালি প্রবাসী কামরুল ইসলাম নিলয় মুত্যুবরন করে পাড়ি জমান স্ত্রী ও দুই সন্তানের কাছে।

সড়ক দুর্ঘটনায় মারাত্মক আহত অবস্থায় কামরুল ইসলাম ও জুয়েল হোসেনকে উদ্ধার করে মক্কা কিং আব্দুল আজিজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। নিলয়ের অবস্থা আশঙ্কাজনক হলে হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে স্থানান্তর করা হয় । সেখানেই তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন । বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নিহত নিলয়ের ভাগিনা সৌদি আরব প্রবাসী রুবেল খান ।

এক সপ্তাহ আগে গত শনিবার ইতালি থেকে স্ত্রী ও দুই পুত্র নিয়ে সৌদি আরবে পবিত্র ওমরা হজ পালন করতে আসেন ইতালি প্রবাসী কামরুল ইসলাম ।পবিত্র নগরী মক্কায় ওমরা শেষ করে বৃহস্পতিবার মক্কা থেকে পবিত্র নগরী মদিনায় মসজিদে নববী ও রাসূল (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারত করতে, নিকটাত্মীয় সৌদি প্রবাসী জুয়েল হোসেনের ব্যক্তিগত গাড়িতে মদিনার উদ্দেশ্যে রওনা হন পরিবারটি। পথে গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পাহাড়ের ঢালুতে পড়ে গেলে ঘটনাস্থলেই কামরুল ইসলাম নিলয়ের স্ত্রী তানিয়া হোসেন ও দুই সন্তান ছেলে ইউসা হোসাইন ও আযান হোসেন মারা যান।

জেদ্দা বাংলাদেশ কনস্যুলেটের লেবার কাউন্সিলর আমিনুল ইসলাম জানান, নিলয়দের বাড়ি ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদরের পৌর এলাকার মুন্সেফপাড়ায়। জুয়েলও ওই এলাকার বাসিন্দা। নিহতদের মরদেহ মক্কার কিং আব্দুল আজিজ, আল-হেরা ও আল-নূর হাসপাতালের হিমাগারে রাখা হয়েছে।

মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হয়ে স্বপরিবারে পরপাড়ে পাড়ি জমানো নিলয়ের পরিবারের সকল সদস্যের অকাল মৃত্যুতে গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেজবুকে বার্তা প্রেরন করছেন প্রবাসীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *